৫০ মণ গরু, ১০ মণ খাসি ও ৭০ মণ চালে আ.লীগ মেয়রের পুণর্মিলনী

জয়পুরহাট পৌর মেয়রের আমন্ত্রণে সোমবার শহরের শহীদ জিয়া কলেজ মাঠ ও পৌর কমিউনিটি সেন্টারে ঈদ পুণর্মিলনী অনুষ্ঠিত হয়েছে। অনুষ্ঠানে জেলার পাঁচ উপজেলার আওয়ামী লীগের নেতাকর্মী ছাড়াও বিভিন্ন শ্রেণিপেশার প্রায় ১৫ হাজার মানুষকে আপ্যায়ন করা হয়।

শহীদ জিয়া কলেজ মাঠে বিশাল প্যান্ডেলে গরুর মাংস দিয়ে এবং পৌর কমিউনিটি সেন্টারে সনাতন ধর্মাবলম্বী ও চিশতিয়া পীরের তরিকাপন্থী মানুষদের খাসির মাংস দিয়ে অ্যাপায়ন করা হয়। মানুষের সমর্থন পেতে এই আয়োজন করেছেন বলে জানান মেয়র মোস্তাফিজুর রহমান মোস্তাক।

খোঁজ নিয়ে জানা গেছে, জয়পুরহাট পৌরসভার মেয়র ও আওয়ামী লীগ নেতা মোস্তাফিজুর রহমান মোস্তাক পবিত্র ঈদুল ফিতর উপলক্ষে পুরো জেলাবাসীর জন্যই আপ্যায়নের ব্যবস্থা করেন। এজন্য তিনি দলের নেতাকর্মীসহ গণ্যমান্য ব্যক্তিদের চিঠি দিয়ে আমন্ত্রণ জানান। শহরের বিভিন্ন মোড়ে নির্মাণ করা হয় ঈদ পুণর্মিলনী তোরণ। অতিথি আপ্যায়নে ৫০ মণ গরুর মাংস, ১০ মণ খাসির মাংস এবং ৭০ মণ চাল কেনা হয়।

গরুর মাংসভোজি অতিথিদের জন্য শহীদ জিয়া কলেজ মাঠ এবং খাসির মাংসভোজিদের জন্য পৃথক প্যান্ডেল নির্মাণ করা হয় পৌর কমিউনিটি সেন্টারে। রান্নার দায়িত্বে ছিলেন শহরের রুচিতা চাইনিজ হোটেলের শুকটা ও দেলোয়ার বাবুর্চির নেতৃত্বে ৫০ জন বাবুর্চি। খাবার পরিবেশন করেন এক হাজার স্বেচ্ছাসেবক। প্রতি বারে ৫ হাজার করে বেলা ৪টা পর্যন্ত মোট তিন বারে ১৫ হাজার মানুষদের আপ্যায়ন করা হয়।

দুপুরে খাবার পরিবেশনের আগে শহীদ জিয়া কলেজ মাঠে আলাদা ঈদ পুণর্মিলনী মঞ্চ থেকে দোয়া মাহফিল অনুষ্ঠানের পর বক্তব্য রাখেন আওয়ামী লীগের কেন্দ্রীয় কমিটির সাংগঠনিক সম্পাদক ও জয়পুরহাট-২ আসনের সংসদ সদস্য আবু সাঈদ আল মাহমুদ স্বপন। আগামী সংসদ নির্বাচনের জন্য তিনি সবার কাছে সমর্থন কামনা করেন।

পরে বিশাল এই আয়োজনের উদ্দেশ্য তুলে ধরে বক্তব্য রাখেন অনুষ্ঠানের আয়োজক পৌর মেয়র মোস্তাফিজুর রহমান মোস্তাক। তিনি বলেন, ‘জেলার উন্নয়নকে এগিয়ে নেওয়ার জন্য মানুষের সহযোগিতা পেতে এই আয়োজন করেছি। জেলার উন্নয়নের স্বার্থে আগামী সংসদ নির্বাচনে নৌকা মার্কার পক্ষে জনমত গড়ে তোলার জন্য সবার সাহায্য চাই।’

জয়পুরহাট সদর উপজেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ও আয়োজক কমিটির অন্যতম সদস্য জহুরুল ইসলাম বলেন, ‘আওয়ামী লীগের নেতাকর্মী ও হিতাকাঙ্ক্ষীদের কাছে সংসদ নির্বাচনের আগাম বার্তা পৌঁছে দেওয়ার জন্যই ঈদপুণর্মিলনীর নামে আমাদের এই যৌথ প্রয়াস।’

সূত্র: বাংলা ট্রিবিউন

Facebook Comments

comments