জেরুসালেম প্রশ্নে যুক্তরাষ্ট্রকে উচিৎ শিক্ষা দিন: এরদোয়ান

জেরুসালেম প্রশ্নে জাতিসংঘ সাধারণ পরিষদে যারা যুক্তরাষ্ট্রের বিপক্ষে ভোট দেবে, তাদের সাহায্য বন্ধ করে দেবেন বলে হুমকি দিয়েছিলেন যুক্তরাষ্ট্রের প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প।

তার শক্ত জবাব দিয়ে তুরস্কের প্রেসিডেন্ট রেজেপ তাইয়িপ এরদোয়ান যুক্তরাষ্ট্রকে উচিৎ শিক্ষা দেয়ার আহ্বান জানিয়েছেন।

মিস্টার এরদোয়ান বলেছেন, অর্থ দিয়ে তুরস্কের ভোট কেনা যাবে না। তিনি আরও বলেছেন, জাতিসংঘের সদস্য রাষ্ট্রগুলোরও উচিৎ হবে না অর্থের বিনিময়ে এই প্রশ্নে তার সিদ্ধান্ত নির্ধারণ করা।

জেরুসালেমকে যুক্তরাষ্ট্র ইসরায়েলের রাজধানী বলে স্বীকৃতি দেয়ার পর এ নিয়ে মধ্যপ্রাচ্যে নতুন করে উত্তেজনা তৈরি হয়েছে।

শুধু আরব বা মুসলিম রাষ্ট্রগুলি নয়, যুক্তরাষ্ট্রের সহজাত মিত্র বলে ধরা হয় যেসব পশ্চিমা দেশকে, তারাও প্রেসিডেন্ট ট্রাম্পের এই সিদ্ধান্তের তীব্র নিন্দা করেছেন।

এই সিদ্ধান্ত প্রত্যাহারের আহ্বান জানিয়ে জাতিসংঘ নিরাপত্তা পরিষদে যে প্রস্তাব আনা হয়, তাতে পনের সদস্যের মধ্যে ১৪টি দেশই এর পক্ষে ভোট দেয়। কিন্তু যুক্তরাষ্ট্রের ভেটোর কারণে এটি নাকচ হয়ে যায়।

এখন জাতিসংঘ সাধারণ পরিষদে একই ধরণের এক প্রস্তাব নিয়ে আলোচনা শুরু হয়েছে।

জেরুসালেম বিশ্বের মুসলিম, ইহুদী এবং খ্রীস্টান—এই তিন ধর্মের মানুষের কাছেই খুব গুরুত্বপূর্ণ তীর্থ। ১৯৬৭ সালের যুদ্ধের পর থেকে ইসরায়েল এই নগরী দখল করে আছে।

ইসরায়েলি এবং ফিলিস্তিনিদের বিরোধ এবং সংঘাতের একেবারে কেন্দ্রে রয়েছে এই জেরুসালেম। ইসরায়েল জেরুসালেমকে তাদের রাজধানী করলেও এর কোন আন্তর্জাতিক স্বীকৃতি মেলেনি। অন্যদিকে ফিলিস্তিনিরা তাদের ভবিষ্যত রাষ্ট্রের রাজধানী হিসেবে জেরুসালেমকেই চায়।

সূত্র: বিবিসি বাংলা

Facebook Comments

comments

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here