‘সরকারি কর্মকর্তাদের চাকরি চলে যাবে বলে ভয় দেখাচ্ছে আ.লীগ’

বিএনপি চেয়ারপারসন খালেদা জিয়া প্রধান বিচারপতির পদত্যাগ প্রসঙ্গে বলেছেন, বিদেশে সরকারের এজেন্সির লোক পাঠিয়ে তাকে পদত্যাগে বাধ্য করা হয়েছে। এ কারণে তিনি দেশে আসতে পারেননি। এর আগে তাকে অসুস্থ বানিয়ে জোর করে বিদেশে পাঠানো হয়।

বিকালে সোহরাওয়ার্দী উদ্যানে আয়োজিত জনসভায় দেয়া বক্তব্যে তিনি একথা বলেন। বক্তব্যে বিচারিক ক্ষমতা দিয়ে নির্বাচনে সেনাবাহিনী মোতায়েন, ও ইভিএম ব্যবহার না করার দাবি জানান খালেদা জিয়া। শেখ হাসিনার অধীনে কোন নির্বাচন হবে না বলেও বক্তব্যে উল্লেখ করেন তিনি।

সরকারি চাকরিজীবীদের নির্ভয়ে কাজ করার আহ্ববান জানিয়ে খালেদা জিয়া বলেন, আওয়ামী লীগ সরকারি চাকরিজীবীদের ভয় দেখাচ্ছে। তারা বলছে, সরকারি কর্মকর্তা-কর্মচারীদের চাকরি চলে যাবে।

তিনি আশ্বস্ত করে বলেন, ক্ষমতায় গেলে বিএনপি কারো চাকরি কেড়ে নেবে না। এ বিষয়ে সরকারি কর্মকর্তা-কর্মচারীরা নিশ্চিন্তে থাকতে পারেন। সরকারি কর্মকর্তাদের উদ্দেশে তিনি বলেন, এসব কাজ বিএনপির নয়। সরকারি কর্মকর্তাদের দক্ষতা দেখা হবে। কারো চাকরি খাওয়া হবে না।

আওয়ামী লীগ নেতাদের বক্তব্যের সমালোচনা করে বিএনপি চেয়ারপারসন বলেন, আওয়ামী লীগ বলছে- বিএনপি ক্ষমতায় আসলে মানুষ হত্যা করবে। আমরা মানুষ হত্যা করি না, মানুষ হত্যা করে আওয়ামী লীগ। এটা আওয়ামী লীগের কাজ, বিএনপির নয়।

রোহিঙ্গা ইস্যুতে তিনি বলেন, এটি একটি জাতীয় সমস্যা। এটাকে কিভাবে সমাধান করা যায় এ নিয়ে আলোচনা করতে হবে। জিয়াউর রহমানের সময় একবার এবং ৯১ সালে রোহিঙ্গাদের নির্যাতন করে দেশ থেকে বের করে দেয়া হয়েছিল। আলোচনা করে তাদের ফেরত পাঠানো হয়েছিল। এখনও বিশ্ব সম্প্রদায়কে সঙ্গে নিয়ে মিয়ানমারকে বাধ্য করতে হবে, যাতে তারা রোহিঙ্গাদের ফিরিয়ে নেয়।

সূত্র: মানবজমিন

Facebook Comments

comments

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here